বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১, ০৮:৫৬ অপরাহ্ন
Reporter Name
  • Update Time : বুধবার, ৩ মার্চ, ২০২১, ১০:৫০ PM
  • ৮০ বার পড়া হয়েছে

সৌদির জিজান বিশ্ববিদ্যালয়ের রেক্টরের সাথে রাষ্ট্রদূত ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারীর বৈঠক

মোঃ নাসির, নিউ জার্সি (আমেরিকা) প্রতিনিধিঃ সৌদি আরবে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী, বিপিএম (বার) গতকাল সৌদি আরবের জিজান প্রদেশে অবস্থিত জিজান বিশ্ববিদ্যালয়ের রেক্টর অধ্যাপক ড. মারেই বিন হুসেইন আল কাহতানি-এর সাথে তাঁর কার্যালয়ে বৈঠক করেন। এ সময় রাষ্ট্রদূত দু’দেশের মধ্যে উচ্চ শিক্ষার ক্ষেত্রে পারষ্পরিক সহযোগিতার বিষয়ে ফলপ্রসূ আলোচনা করেন।

রাষ্ট্রদূত বাংলাদেশের সরকারি এবং বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাথে জিজান বিশ্ববিদ্যালয়ের যৌথভাবে গবেষণা সম্পাদন, শিক্ষার্থী বিনিময় কার্যক্রম এবং আরো বেশি সংখ্যক বাংলাদেশি শিক্ষক নিয়োগের বিষয়ে আহবান জানান। তিনি বাংলাদেশী শিক্ষার্থীদের জন্য বৃত্তিসংখ্যা বৃদ্ধিরও অনুরোধ জানান। রেক্টর এ প্রস্তাবনাকে স্বাগত জানিয়ে বলেন, তাঁর বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থী বিনিময় কার্যক্রমে অত্যন্ত আগ্রহী। তিনি রাষ্ট্রদূতকে এ বিষয়ে সর্বোচ্চ সহযোগিতার আশ্বাস দেন। এ বিশ্ববিদ্যালয় দেশি-বিদেশি সকলের জন্য উন্মুক্ত বিধায় মেধাবী বাংলাদেশী শিক্ষার্থীরা সহজেই উচ্চ শিক্ষার সুযোগ পাবে মর্মে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন। রাষ্ট্রদূত দ্বিপাক্ষিক যোগাযোগ ও আলোচনার মাধ্যমে এ বিষয়ে বাংলাদেশের পক্ষ থেকে কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণের বিষয়ে আশ্বস্ত করেন।

রেক্টর রাষ্ট্রদূতকে জানান যে চিকিৎসাবিজ্ঞান ব্যতীত অন্যান্য সকল অনুষদ বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের জন্য উন্মুক্ত। রেক্টর এ বিশ্ববিদ্যালয়ে আন্তর্জাতিক শিক্ষার্থীদের জন্য আবাসন ও আর্থিক সুবিধা প্রদানের বিষয়টি অবহিত করেন। এছাড়াও আগামী বছর হতে এ বিশ্ববিদ্যালয়ে সাধারণ শিক্ষা ও আরবী ভাষা শিক্ষা বিষয়ে পিএইচডি চালু করা হবে বলে জানান। বিশ্ববিদ্যালয়ের রেক্টর কাহতানি জানান, জিজান বিশ্ববিদ্যালয়ে বর্তমানে প্রায় ৫০ হাজার শিক্ষার্থী রয়েছে যার বেশিরভাগই নারী শিক্ষার্থী। ৩৭টি দেশের শিক্ষার্থী এ বিশ্ববিদ্যালয়ে বর্তমানে অধ্যয়ন করছে। এ বিশ্ববিদ্যালয়ে বিভিন্ন অনুষদে তিন হাজারেরও অধিক শিক্ষক রয়েছে যার মধ্যে ২১ জন বাংলাদেশের। এখানে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর পর্যায়ে বর্তমানে নয় জন বাংলাদেশী শিক্ষার্থী রয়েছে এবং পাঁচ জন শিক্ষার্থী ইতোমধ্যে অধ্যয়ন সমাপ্ত করেছে।

রাষ্ট্রদূত ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী, বিপিএম (বার) গতকাল সৌদি আরবের জাজান প্রদেশের পুলিশ প্রধান মেজর জেনারেল আব্দুল্লাহ বিন মিসফার আল জুহাইরিথি এর সাথে তাঁর কার্যালয়ে বৈঠক করেন।

রাষ্ট্রদূত ড. জাবেদ পাটোয়ারী জিজান, নাজরান, বিশা ও আভা সহ এলাকায় বসবাসরত প্রায় তিন লক্ষ প্রবাসী বাংলাদেশীদের নিরাপত্তা প্রদানের জন্য পুলিশ প্রধান মেজর জেনারেল আব্দুল্লাহ বিন মিসফার-কে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান। পুলিশ প্রধান এ অঞ্চলে বসবাসরত বাংলাদেশীদের সৌদি আরবের আইন-কানুন ও বিধিবিধান মেনে চলা এবং অপরাধমূলক কার্যক্রমে খুবই কম পরিমানে জড়িত থাকার বিষয়টি উল্লেখ করে তাঁদের প্রশংসা করেন। তিনি এ সময় বাংলাদেশসহ সকল মুসলিম রাষ্ট্রের জনগণের হজ্জ্ব-উমরাহসহ অন্যান্য যেকোন সময়ে সার্বিক সেবা করাকে অনন্য সুযোগ বলে অবহিত করেন। বাংলাদেশীদের যেকোন সমস্যা সমাধানে ও নিরাপত্তা প্রদানে তাঁর বাহিনী সর্বোচ্চ সচেষ্ট রয়েছে বলে অবহিত করেন। পুলিশ প্রধান জেদ্দাস্থ বাংলাদেশ কনস্যুলেট হতে আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি ও অপরাধ বিষয়ের জন্য একজন ফোকাল পয়েন্ট নির্ধারণের অনুরোধ জানান। একইসাথে তাঁর কার্যালয়ে অনুরূপ একটি ফোকাল পয়েন্ট নির্ধারণ করবেন মর্মে উল্লেখ করেন।

বৈঠক শেষে পুলিশ প্রধান বাংলাদেশী অভিবাসীদের নিরাপত্তা বিধানকল্পে তাঁর বাহিনী সদা সচেষ্ট থাকবে উল্লেখ করে দু’টি ভাতৃপ্রতিম দেশের বন্ধুত্ব এবং পারষ্পরিক সহযোগিতা বৃদ্ধির বিষয়ে পুনরায় আশাবাদ ব্যক্ত করেন। বৈঠককালে জেদ্দার দায়িত্বপ্রাপ্ত কনসাল জেনারেল এস এম আনিসুল হক ও রিয়াদ দূতাবাসের ইকনমিক কাউন্সেলর মুর্তুজা জুলকার নাঈন নোমান উপস্থিত ছিলেন।

এছাড়াও রাষ্ট্রদূত গত ০২ মার্চ রাতে জাজান প্রদেশে বসবাসরত বিভিন্ন পেশার বাংলাদেশি অভিবাসীদের নিয়ে অনলাইনে মতবিনিময় করেন। করোনাভাইরাস সংক্রমণ বিস্তার প্রতিরোধে অনুষ্ঠান আয়োজনে নিষেধাজ্ঞা থাকায় অনলাইনে আয়োজিত অনুষ্ঠানে তিনি অভিবাসীদের বিভিন্ন সমস্যা মনোযোগ দিয়ে শোনেন এবং তা সমাধানের আশ্বাস দেন।

Please Share This Post in Your Social Media

এই জাতীয় আরো নিউজ

© All rights reserved © 2020 bd-bangla24.com

Theme Customized By Subrata Sutradhar